ফিসারীঘাটে ১৯০ লিটার অবৈধ চোলাই মদ বোঝাই সিএনজি আটক | অন্যদিগন্ত

বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৯:২১ পূর্বাহ্ন

ফিসারীঘাটে ১৯০ লিটার অবৈধ চোলাই মদ বোঝাই সিএনজি আটক

সাহেদুল ইসলাম সাগরঃ বিভাগীয় ব্যুরো চীফ,চট্টগ্রাম।
অবশেষে ফিসারীঘাট মাদক বিরোধী আন্দোলনের প্রথম সফলতা।এলাকাবাসীর প্রাণের দাবীকে সফলতায় রুপদানে পাঠক নন্দিত জনপ্রিয় পত্রিকা দৈনিক অন্যদিগন্তের অনুসন্ধানী প্রতিনিধিদল এলাকার অবৈধ মাদকের খুপড়িগুলিতে সরেজমিনে পরিদর্শন পূর্বক এলাকার বিভিন্ন গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের মতামত ও চট্টগ্রামের স্বনামধন্য বিদ্যানিকেতন সেন্ট স্কলাসটিকাস গার্লস স্কুলের সম্মানিতা অধ্যক্ষ্যা,ছাত্র-ছাত্রী ও অভিভাবকদের মতামত গ্রহণ পূর্বক এই ব্যাপারে ইতিমধ্যে ফিসারীঘাটের মাদক ব্যাবসা নিয়ে অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের ১ম ও ২য় পর্ব প্রকাশ করে।উক্ত প্রতিবেদনেও ফিসারীঘাটের মাদকের মূল হোতা অনুপ বিশ্বাস,সাগর দাশ ও তার ভাই সবুজ দাশের মাদকের ব্যবসা নিয়ে বিস্তারিত উল্লেখ করা হয়।এছাড়াও মাদকের বিরুদ্ধে এলাকার সর্বস্তরের আপামর জনসাধারণ নিজের জীবন বাজী রেখে,মাদক ব্যবসায়ীদের রক্তচক্ষু উপেক্ষা করে মাদকের রমরমা ব্যবসার প্রকৃত চিত্র তুলে ধরে একাধিক ভিডিও,মানববন্ধন,বিক্ষোভ মিছিল সহ নানারকম কর্মসূচি দেওয়ার পরও প্রশাসনের নীরবতা ভাঙেনি।উল্টো মাদক ব্যবসায়ীদের হুংকারে তটস্থ হয়ে থাকতে হয়েছে নিরীহ এলাকাবাসীকে।প্রতিদিনকার ন্যায় আজকেও(২২শে আগস্ট)অনুপ বিশ্বাস ও সাগর দাশের অবৈধ মদের বার হতে কয়েকটি সিএনজি বোঝাই করে দিন দুপুরে চোলাই মদ নিয়ে যাওয়ার প্রাক্কালে দুপুর ০২ ঘটিকার সময় এলাকাবাসী একজোট হয়ে উক্ত অবৈধ চোলাইমদ বোঝাই সিএনজি ট্যাক্সির গতিরোধ করতঃ সরাসরি ভিডিও ধারন পূর্বক স্থানীয় থানাকে খবর দিলে,উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে ফিসারীঘাটস্থ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্য এস আই সঞ্জয় পালের নেতৃত্বে এস আই মাসুদ ও তৎসঙ্গীয় ফোর্স সহ ঘটনাস্থলে এসে উক্ত অবৈধ চোলাই মদ বোঝাই সিএনজি টেক্সিকে আটক করে।এরপর স্থানীয় লোকজনের সম্মুখে উক্ত সিএনজি হতে পলিথিনের বড় প্যাকেট ভর্তি চোলাই মদগুলি জব্দ করে স্থানীয় কোতোয়ালি থানায় নিয়ে যায়।এই ব্যাপারে ফিসারীঘাটস্থ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এস আই সঞ্জয় পাল এর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি দৈনিক অন্যদিগন্তকে জানান,এলাকাবাসী একটি অবৈধ চোলাই মদ বোঝাই সিএনজি ট্যাক্সিকে আটক করে আমাদেরকে খবর দিলে আমরা ঘটনাস্থলে পৌছে উক্ত সিএনজিকে আটক করি।পরে,সিএনজি ড্রাইভারের দেখানো মতে সিএনজি’র পেছনে চোলাই মদ ভর্তি পলিথিনের বস্তা বের করি।উক্ত বস্তার ভেতরে ছোট ছোট পুটলা আকারে মোট ৩৮টি প্যাকেট পাওয়া যায়।উক্ত ছোট ছোট পুটলার ভেতরে ৫(পাঁচ) লিটার করে সর্বমোট (৩৮×০৫)=১৯০ লিটার চোলাই মদ উদ্ধার পূর্বক জব্দ করা হয়।পরে উক্ত সিএনজি ড্রাইভারকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসি।বর্তমানে,উক্ত মদের উৎস ও এই মদের মূল হোতা এবং এই মাদক ব্যবসার সাথে আর কে কে জড়িত আছে সেই ব্যাপারে গ্রেফতারকৃত সিএনজি ড্রাইভারকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।জিজ্ঞাসাবাদ শেষে এই মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত মূল হোতাদের গ্রেফতারের অভিজান পরিচালনা করা হবে।তদন্ত,জিজ্ঞাসাবাদ ও অভিজান শেষে এই ব্যাপারে থানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হবে বলে জানান এস আই সঞ্জয় পাল।

Please Share This Post in Your Social Media


কপিরাইটঃ ২০১৬ দৈনিক অন্যদিগন্ত এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Design & Developed BY Seskhobor.Com
Shares
CrestaProject