দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে: প্রধানমন্ত্রী | অন্যদিগন্ত

শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ০৫:২২ পূর্বাহ্ন

দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে: প্রধানমন্ত্রী

অন্যদিগন্ত ডেস্ক ॥

দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শনিবার বিকালে নিউ ইয়র্কের ম্যারিয়ট মারকুইজ হোটেলে এক নাগরিক সংবর্ধনায় তিনি এ ঘোষণা দেন। প্রধানমন্ত্রীর সম্মানে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ এ নাগরিক সংবর্ধনার আয়োজন করে।

অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা সন্ত্রাসবাদ, জঙ্গিবাদ, দুর্নীতি ও মাদকের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছি। আমি পরিষ্কারভাবে একটা কথা বলতে চাই, কেউ যদি অসৎ পথে অর্থ উপার্জন করে এবং তার অনিয়ম, অসততা ধরা পড়ে, তাহলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে। তারা যে-ই হোক না কেন, এমনকি আমার নিজ দলের লোক হলেও।

শেখ হাসিনা বলেন, অসৎ উপায়ের মাধ্যমে অর্থ উপার্জনকারী ব্যক্তিরা যখন সমাজকে পঙ্গু করে ফেলে, তখন জনগণকে তাদের সন্তানদের নিয়ে সৎ জীবনযাপন করা খুব কঠিন হয়ে পড়ে।

তিনি বলেন, যারা সৎ জীবনযাপন করতে চান, তাদের কিছু সীমাবদ্ধতা নিয়ে চলতে হয়। কিন্তু যারা অসাধু উপায়ে অর্জিত অর্থের মাধ্যমে বিলাসবহুল জীবনযাপন করে, তাদের মাধ্যমেই বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয়।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, অসৎ ব্যক্তিদের প্রভাবের কারণে যারা সৎভাবে জীবনযাপন করতে চান, তাদের জীবনযাপনও কঠিন হয়ে পড়েছে। সৎ লোকদের বাচ্চাদের মনে স্বাভাবিকভাবেই একটি প্রশ্ন জাগে, তাদের পরিবার কেন অন্যদের মতো বিলাসবহুল জীবনযাপন করতে পারে না? অসৎ উপায়ে অর্থ উপার্জন করা পরিবারের বাচ্চাদের মতো লাইফস্টাইল তারাও কেন পায় না? স্বভাবতই এমন চিন্তাভাবনা মানুষকে অসৎ পথে চালিত করে।

উন্নয়ন প্রকল্পে অনিয়মের কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, সরকার ব্যাপক উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নিয়েছে। এসব প্রকল্পের প্রতিটি টাকা যথাযথভাবে ব্যয় করা হলে বাংলাদেশ আরও উন্নত হতে পারতো।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, তিনি একটি বিষয় অনুসন্ধানের জন্য বলেছিলেন। বিষয়টি হচ্ছে কার উপার্জন কী এবং তারা কীভাবে জীবনযাপন করে। আমার এটি খুঁজে বের করতে হবে যেন এই বিপদ ও নোংরা প্রতিযোগিতা থেকে আমাদের সমাজ ও নতুন প্রজন্মকে রক্ষা করতে পারি।

শেখ হাসিনা বলেন, মাদকবিরোধী অভিযানও অব্যাহত থাকবে। কেননা এটি একটি পরিবার ও দেশকে ধ্বংস করে দেয়। আমরা মাদকের সঙ্গে জড়িতদের খুঁজে বের করবো। সূত্র: বাসস।

Print Friendly, PDF & Email

Please Share This Post in Your Social Media


কপিরাইটঃ ২০১৬ দৈনিক অন্যদিগন্ত এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Design & Developed BY Seskhobor.Com
Shares
CrestaProject