সিলেটের মেয়র আরিফুলের বিরুদ্ধে ঢাকায় মামলা | অন্যদিগন্ত

বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯, ১১:৫২ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ
পেঁয়াজের বাজার নিয়ন্ত্রণে এসেছে, দাবি শিল্পমন্ত্রীর  নারায়ণগঞ্জ টেকনিক্যাল স্কুলের সীমানা প্রাচীর ধসে প্রাণ হানির আতঙ্কে ৩ হাজার মানুষ লালমনিরহাট সদর উপজেলায় স্কুল ছাত্রীকে ৫দিন আটকে রেখে গনধর্ষণ ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের সিনেমা ফিরিয়ে দিলেন পরিণীতি ট্রেন দুর্ঘটনায় আহত শিশুটির পরিচয় মিলেছে, নিখোঁজ মা-দাদি বসুন্ধরা পেপারের লেনদেন পূর্ব ৬৯ কোটি টাকার মুনাফা নামল ২৯ কোটিতে ইডেনের ইনডোর উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রেন দুর্ঘটনায় রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী শোক কসবার ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৬, তদন্ত কমিটি শহীদ নুর হোসেনকে নিয়ে রাঙ্গার আপত্তিকর মন্তব্যে প্রতিবাদে ফুসে উঠেছে রংপুরের যুবলীগ

সিলেটের মেয়র আরিফুলের বিরুদ্ধে ঢাকায় মামলা

নার্গিস রুবি॥
অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীর বিরুদ্ধে ঢাকায় মামলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ঢাকার চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মেয়র আরিফের বিরুদ্ধে ৪২০, ৪০৬ ও ৫০৬ পেনাল কোডে মামলা করেন ঠিকাদার সঞ্জয় রায়। মামলায় ঢাকার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান মাহবুব ব্রাদার্স লিমিটেডের পরিচালক শেখ মোস্তাফিজুর রহমানকেও আসামি করা হয়েছে। শুনানি শেষে আদালত অভিযোগ আমলে নিয়ে পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন বলে জানান বাদীর আইনজীবী এডভোকেট আবদুল্লাহ আল জাহিদ।

তিনি জানান, মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীসহ দু’জনের বিরুদ্ধে ২ কোটি ৬৬ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগের মামলা করা হয়েছে। আগামী ১৩ই নভেম্বর মামলার পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করেছেন আদালত।

সঞ্জয় রায় অভিযোগ করেন, ২০১৪ সালে সিলেট সিটি করপোরেশনে নগর ভবন নির্মাণের জন্য একটি ওয়ার্ক অর্ডার হয়। ওই ওয়ার্ক অর্ডারটি ১৬ কোটি আট লাখ টাকা মূল্যে মাহবুব ব্রাদার্স প্রাইভেট লিমিটেডকে প্রদান করা হয়। মাহবুব ব্রাদার্স কাজটি সম্পাদনের জন্য ২০১৪ সালের ২৩শে নভেম্বর সম্পা-তপা এন্টারপ্রাইজের প্রোপাইটর সঞ্জয় রায়ের সঙ্গে চুক্তি করে। এই কাজের বিপরীতে নগর ভবন মাহবুব ব্রাদার্সের নামে বিল ইস্যু করতো এবং তারা সম্পা-তপা এন্টারপ্রাইজকে টাকা দিতো।
মোট কাজের আনুমানিক ৫ শতাংশ কাজ বাকি থাকা অবস্থায় সঞ্জয় রায়ের লিভার সিরোসিস রোগ ধরা পড়লে তিনি চিকিৎসা নিতে ভারতে যান। এই সময় মেয়র আরিফুল মূল ঠিকাদার মাহাবুব ব্রাদার্সকে জিম্মি করে দুই কোটি ৬৬ লাখ টাকার চূড়ান্ত বিল সঞ্জয় রায়ের অগোচরে রেখে আত্মসাৎ করেন। পরে দেশে ফিরে টাকা ফেরত চাইলে মেয়র আরিফ সঞ্জয়কে প্রাণনাশের হুমকি দেন বলে অভিযোগ করেছিলেন এই ঠিকাদার। মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী দেশের বাইরে থাকায় মামলার ব্যাপারে তার কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। তবে গত ১৮ই ফেব্রুয়ারি মানববন্ধনের পর ঠিকাদার সঞ্জয় রায়ের অভিযোগ অস্বীকার করেছিলেন মেয়র আরিফুল।

Print Friendly, PDF & Email

Please Share This Post in Your Social Media


কপিরাইটঃ ২০১৬ দৈনিক অন্যদিগন্ত এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Design & Developed BY Seskhobor.Com
Shares
CrestaProject